শিশুর গায়ে তেল মালিশ করার আদৌ কি কোন দরকার আছে? শিশুর শরীরে তেল মালিশ সম্পর্কে ডাক্তারদের পরামর্শ কি?

ছোট শিশুর গায়ে তেল মাখাকে নৈমিত্তিক কাজ বলে মনে করেন অনেক মা। শুধু গোসলের আগেই নয়, গোসলের পরেও চলে তেল মাখার নিপুণ কর্ম।

কিন্তু শিশুর শরীরে আদৌ তেল মাখার দরকার আছে কি না এ রকম প্রশ্ন অনেকেই করেন। শিশু বিশেষজ্ঞের মতানুসারে শুধু শীতকাল ছাড়া অন্য সময়ে শিশুকে তেল মাখার দরকার নেই। তখন তেল মাখলে লাভের চেয়ে ক্ষতিই হয় বেশি।

শিশুর বয়স এক মাস হলেই তার ঘাম হতে শুরু করে। অর্থাৎ তখন থেকেই শরীর দেহের তাপমাত্রা নিয়ন্ত্রণে সক্ষম থাকে, দেহের আর্দ্রতা বজায় থাকে। শিশুর গায়ে বেশি করে তেল মাখলে তা ত্বকের উপরের ময়লার সঙ্গে মিশে ঘর্মগ্রন্থির ছিদ্রপথ বন্ধ করে দেয়।

ফলে ঘাম আর বেরিয়ে আসতে পারে না। এই অবস্থা দীর্ঘদিন চলতে থাকলে তেল ময়লার ঘর্মগ্রন্থির ছিদ্রপথ আটকে গিয়ে ত্বকে ফুসকুড়ি ও ঘামাচিসহ আরো অনেক চর্মরোগ দেখা দেয়। তাই দীর্ঘদিনের প্রচলিত ধ্যানধারণা তেল ত্বকের জন্য অপরিহার্য এ কথাটি সত্য নয়। তবে শীতকালে ত্বকে খুব হালকা করে তেল মাখা যেতে পারে, শরীরটা উষ্ণ রাখার জন্য এবং ত্বকের আর্দ্রতা রক্ষার জন্য। তাই শিশুর গায়ে তেল মাখা নিয়ে সিরিয়াস হওয়ার কিছু নেই। শিশুর দেহে তেল মাখতেই হবে এমন ধারণা ঠিক নয়।

সোর্স: ডা. সজল আশফাক

Sharing is caring!

Comments are closed.

error: Content is protected !!