বাচ্চাকে নিজে নিজে খাওয়ার প্রতি আগ্রহী করবেন যেভাবে

প্রকৃতির নিয়মেই বেড়ে ওঠে শিশু। খেতে চায় নিজ হাতে। আপনি হয়ত বিরক্ত হয়ে ওঠেন ওর ছড়ান ছেটান খাবার দেখে। কিন্তু মোটেও বিরক্ত হবেন না। কারণ এভাবেই শিশু এক সময় নিজে নিজে খেতে শিখে জাবে। আসুন দেখে নেই ব্যাপারটি কিভাবে সামলাবেন।

১। বাচ্চাকে খাওয়ানোর আগে নিজে চেখে খাবারের স্বাদ নির্ধারণ করুণ।

২। বাচ্চাকে একা একা খাতে দিন, তবে চোখের আড়াল করবেন না।

৩। বাচ্চা নিজে নিজে খেতে শুরু করলে ওর জন্য একটি হাই ফিডিং চেয়ার কিনুন। এছাড়াও প্রয়োজন হবে বেশ কিছু প্লাস্টিকের গ্লাস , প্লেট যা সহজেই ধোঁয়া যায়। বাচ্চাকে চেয়ারে বসিয়ে চারদিকে আটকে দিন যেন পরে না যায়। সামনে ট্রেতে খাবার দিলে ও    নিজের মতো করে খাওয়ার চেষ্টা করবে।

৪। বাচ্চা প্রথম খাওয়া শুরু করলে তা কোনভাবেই পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন ব্যাপার হবে না। না  হোক, আপনার একটু কষ্ট হলেও ওকে স্বাধীনভাবে খেতে দিন। এতে খাওয়ার প্রতি ওর আগ্রহ বাড়বে ও তাড়াতাড়ি খেতেও শিখবে।

৫। প্রথমদিকে বাচ্চাকে ফিঙ্গার ফুডস খেতে শেখান যা ও হাতে ধরে খেতে পারবে। ধীরে ধীরে একটা ডিপ বাটিতে খাবার দিন। সাথে দিন একটা গোল ছোট্ট বাটির আকারের চামচ। ওর খেতে সুবিধে হবে।

৭। প্রথমেই বাচ্চা পুরো খাবারটা খেয়ে উঠতে পারবে না। যখনই বুঝবেন ও ক্লান্ত হয়ে পড়েছে, তখনই আপনি ধীরে ধীরে খাওয়ানো শুরু করুন।

৮। বাচ্চা কতটা খাবে সেটা ওকেই ঠিক করতে দিন। জোর করে বকা দিয়ে খাওয়ালে বাচ্চার খাওয়ার প্রতি বিরক্তি এসে যাবে।

৯। মাঝে মাঝে বাচ্চার ম্যানুতে আমল পরিবর্তন আনুন। এতে বাচ্চা খাবার এর প্রতি আগ্রহ হারাবে না।

Sharing is caring!

Comments are closed.