হবু মায়ের অতিরিক্ত মেকআপ শিশুর বুদ্ধি কমায়

হবু মায়ের অতিরিক্ত মেকআপ গর্ভের শিশুর মস্তিষ্কে মারাত্নক প্রভাব ফেলে। মায়ের সাজসজ্জার কারণে বুদ্ধি কমে যেতে পারে গর্ভের শিশুর। যুক্তরাষ্ট্র ভিত্তিক পাবলিক লাইব্রেরি অব সায়েন্স ওয়ান নামক এক জার্নালের গবেষণা থেকে ঠিক এমন তথ্যই জানানো হয়েছে৷ গর্ভে সন্তান থাকলে সে যেমন মায়ের শরীরের খাবার গ্রহণ করে, তেমনই মায়ের ব্যবহৃত প্রসাধনী সামগ্রীর রাসায়নিক পদার্থের প্রভাবও পড়ে তার উপরে৷ আর তাতেই গর্ভজাত শিশুর বুদ্ধি কমে যায়।

পাবলিক লাইব্রেরি অব সায়েন্স ওয়ান জার্নালের গবেষণায় আরও দেখা গিয়েছে, চুল শুকোনোর যন্ত্র, নেইল পলিশ, লিপস্টিক, হেয়ার স্প্রে এবং বিভিন্ন সাবানে ব্যবহৃত রাসায়নিক পদার্থগুলো গর্ভের শিশুর জন্য ক্ষতিকর। এমনকি জন্মের পর শিশুর বুদ্ধিমত্তা স্বাভাবিকের চেয়ে ছয় ধাপ পর্যন্ত কমিয়ে দিতে পারে৷

এই গবেষণায় নিউইয়র্কের ৩২৮ জন প্রসূতিকে বেছে নেওয়া হয়েছিল। গবেষণায় দেখা যায়, প্রসাধন ব্যবহারকারী মায়েদের জন্ম দেওয়া শতকরা ২৫ ভাগ সন্তানের আইকিউ স্বাভাবিকের চেয়ে কম। শিশুর বুদ্ধির বিকাশে মায়ের বুদ্ধিমত্তা এবং পারিবারিক পরিবেশের অবদানের কথাও স্বীকার করেছেন তাঁরা। তবে সব কিছুর পরেও মেকআপের রাসায়নিকের প্রভাবকে দায়ী করেছেন গবেষকরা।

প্রসাধনসামগ্রীই শুধু নয় পিভিসি দরজা, পর্দা, এমনকি গাড়ির ড্যাশবোর্ডে ব্যবহৃত রাসায়নিক পদার্থ শিশুর পাশাপাশি হবু মায়ের শরীরের জন্য ক্ষতিকর। তাই প্রসাধন ব্যবহারের আগে তার মান যাচাই করে ব্যবহারের পরামর্শ দিয়েছেন বিজ্ঞানীরা।
(সংকলিত)

Sharing is caring!

Comments are closed.

error: Content is protected !!