নবজাত শিশুকে ম্যাসাজ করা কতটুকু প্রয়োজন

নবজাত শিশুকে নিয়ে উৎসাহের শেষ নেই। অতি উৎসাহীদের অনেকেই মনে করেন, নবজাত শিশুদের শরীর প্রতিদিন ম্যাসাজ করা উচিত। তাঁদের ধারণা, শরীর ম্যাসাজ করলে ত্বকে রক্ত সরবরাহ বাড়বে এবং হাত-পা সোজা হবে। আসলে সাধারণের এই ধারণা মোটেও সত্য নয়, বরং এগুলোর কোনো বৈজ্ঞানিক ভিত্তি নেই।

প্রকৃতপক্ষে নবজাত শিশুর শরীর ম্যাসাজ করার কোনো দরকার নেই। ম্যাসাজ করলে বরং ত্বকের ক্ষতি হতে পারে। ম্যাসাজের কাজে ব্যবহৃত উপকরণ, যেমন—তেল, মালাই, ঘি ইত্যাদি ত্বকের সংস্পর্শে অ্যালার্জিজনিত প্রতিক্রিয়ার উদ্রেক করতে পারে। আর ম্যাসাজের কারণে ত্বকের লোমকূপগুলো বন্ধ হয়ে যেতে পারে। এতে ত্বকে ফোঁড়া হতে পারে।

ঘটনাক্রমে নবজাত শিশুর মাংসপেশির টান সাধারণভাবেই একটু বেশি থাকে। এতে শিশুর পা সোজা না থেকে ভাঁজ করা অবস্থায় থাকে। তবে ছয় সপ্তাহ থেকে তিন মাসের মধ্যে মাংসপেশির এই টান কমতে থাকে এবং তখন হাত-পা স্বাভাবিকভাবেই সোজা অবস্থায় চলে আসে। কাজেই হাত-পা সোজা অবস্থায় আসার উপযুক্ত হওয়ার আগেই যদি ম্যাসাজ করে টেনে সেগুলো সোজা করার চেষ্টা করা হয়, সেটি অবশ্যই ঠিক কাজ হবে না। এতে ভালো কিছু আশা করা যায় না। সুতরাং নবজাত শিশুকে ম্যাসাজ করে অযথা দুশ্চিন্তা ডেকে না আনাটাই বাঞ্ছনীয়।

লেখক : সহযোগী অধ্যাপক, হলি ফ্যামিলি রেড ক্রিসেন্ট মেডিকেল কলেজ।

source:ntv

Sharing is caring!

Comments are closed.

error: Content is protected !!