Home মায়ের গর্ভ গর্ভধারণের সময় জটিলতা এড়াতে গর্ভধারণের আগে কি ধরণের স্বাস্থ্য পরীক্ষা করে নেওয়া উচিত?

গর্ভধারণের সময় জটিলতা এড়াতে গর্ভধারণের আগে কি ধরণের স্বাস্থ্য পরীক্ষা করে নেওয়া উচিত?

4 second read
0
779

গর্ভধারণের সময় জটিলতা এড়াতে গর্ভবতী মায়ের বেশ কিছু স্বাস্থ্যপরীক্ষা করানো উচিৎ।

চিকিৎসকদের মতে, গর্ভাবস্থায় অন্তত চারবার গর্ভকালীন স্বাস্থ্য পরীক্ষা করতে হবে (মায়ের ওজন, রক্তস্বল্পতা, রক্তচাপ, গর্ভে শিশুর অবস্থান ইত্যাদি পরীক্ষা করা) * ১ম স্বাস্থ্য পরীক্ষা = ১৬ সপ্তাহে (৪ মাস) * ২য় স্বাস্থ্য পরীক্ষা = ২৪-২৮ সপ্তাহে (৬-৭ মাস) * ৩য় স্বাস্থ্য পরীক্ষা = ৩২ সপ্তাহে (৮ মাস) * ৪র্থ স্বাস্থ্য পরীক্ষা = ৩৬ সপ্তাহে (৯ মাস) * রোগ সংক্রমণ প্রতিরোধ এবং চিকিৎসা যদি আপনি কোনো টিটি টিকা না দিয়ে থাকেন তাহলে টিকা শুরু করতে হবে এবং গর্ভাবস্থায় ৫ মাস পর ২টি টিটি টিকা নিতে হবে, সিডিউল অনুযায়ী বাকি টিকাগুলো নিতে হবে।
দীর্ঘস্থায়ী ইমিউনিটির জন্য ৫টি টিটি টিকার নির্ধারিত সময়সূচি : ১ম ডোজ (TT1) : ১৫ বছর বয়সে অথবা প্রসব পূর্ববর্তী প্রথম ভিজিটে ২য় ডোজ (TT2) : ১ম ডোজ নেয়ার অন্তত ১ মাস (৪ সপ্তাহ) পর ৩য় ডোজ (TT3) : ২য় ডোজ নেয়ার অন্তত ৬ মাস পর ৪র্থ ডোজ (TT4) : ৩য় ডোজ নেয়ার কমপক্ষে ১ বছর পর ৫ম ডোজ (TT5) : ৪র্থ ডোজ নেয়ার কমপক্ষে ১ বছর পর
সোর্স: ইন্টারনেট

Load More Related Articles
Load More In মায়ের গর্ভ
Comments are closed.

Check Also

গরমে শিশুর পানিশূন্যতা

শিশুরা খুব সহজেই পানিশূন্যতায় আক্রান্ত হয়। কারণ, তাদের শরীরের কোষের বাইরের তরলের পরিমাণ বে…